শেয়ার
 
Comments
গ্রামীণ ভারত প্রকাশ্য শৌচমুক্ত হয়েছে #Gandhi150 #SwachhBharat
২০২২ সালের মধ্যে আমাদের দেশকে একবার ব্যবহারযোগ্য প্লাস্টিকমুক্ত করার লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করতে হবে: প্রধানমন্ত্রী মোদী #Gandhi150 #SwachhBharat
গান্ধীজির ভিশনে অনুপ্রাণিত হয়ে আমরা একটি সুস্থ, সমৃদ্ধ এবং মজবুত নতুন ভারত গড়ছি: প্রধানমন্ত্রী

 

প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী আমেদাবাদে বুধবার স্বচ্ছ ভারত ২০১৯এর সূচনা করেছেন। মহাত্মা গান্ধীর সার্ধশত জন্মবার্ষিকী স্মরণে তিনি একটি স্মারক ডাকটিকিট এবং রূপোর মুদ্রা প্রকাশ করেছেন। একইসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী স্বচ্ছ ভারত পুরস্কার প্রাপকদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন। এর আগে এদিন তিনি সবরমতী আশ্রমে মহাত্মা গান্ধীর প্রতি শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন। তিনি ‘মগন নিবাস’ (চরকা প্রদর্শনীশালা) পরিদর্শন করেন এবং শিশুদের সঙ্গে আলাপচারিতায় মিলিত হন।

প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী স্বচ্ছ ভারত দিবসের অনুষ্ঠানে পঞ্চায়েত প্রধানদের সভায় বলেন, সমগ্র বিশ্ব আজ গান্ধীজির সার্ধশত জন্মবার্ষিকী উদযাপন করছে। তিনি বলেন, কয়েকদিন আগেই রাষ্ট্রসঙ্ঘ গান্ধীজির ওপর একটি স্মারক ডাকটিকিট প্রকাশ করে এই দিনটিকে যথেষ্ঠই স্মরণীয় করে তুলেছে। তাঁর জীবনে বেশ কয়েকবার সবরমতী আশ্রম পরিদর্শনের সৌভাগ্য হয়েছে। প্রতিবারই তিনি এখান থেকে নতুন শক্তি সঞ্জয় করেছেন বলে প্রধানমন্ত্রী উল্লেখ করেন।

প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী এদিন গ্রামীণ ভারতকে শৌচকর্ম থেকে মুক্ত হিসেবে ঘোষণা করেন। ‘স্বচ্ছতা’র অঙ্গ হিসেবে এই লক্ষ্যপূরণের জন্য তিনি দেশবাসীকে বিশেষ করে গ্রামে বসবাসকারী মানুষ এবং গ্রাম প্রধানদের ধন্যবাদ জানান। তিনি আরও বলেন বয়স, সমাজ এবং অর্থনৈতিক মানদন্ডের বিচার না করে প্রত্যেকেরই স্বচ্ছতা অভিযানে এগিয়ে আসার প্রয়োজন। আজ সারা বিশ্ব ভারতের এই উদ্যোগে অভিভূত বলেও তিনি জানিয়েছে। ৬০ মাসের মধ্যে ৬০ কোটি মানুষের জন্য ১১ কোটি শৌচালয় নির্মাণ সারা বিশ্বকে অবাক করে দিয়েছে বলেও প্রধানমন্ত্রী জানান।

শ্রী মোদী আরও বলেন, সাধারণ মানুষের স্বচ্ছ ভারত অভিযানে স্বেচ্ছায় অংশগ্রহণই এই সাফল্য এনে দিয়েছে। এই লক্ষ্যপূরণে যেভাবে দেশবাসী এগিয়ে এসেছেন, তারজন্য সকলকে ধন্যবাদ জানান তিনি। সাধারণ মানুষের অংশগ্রহণের গুরুত্বের ওপর জোর দিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, একইভাবে জল জীবন মিশন এবং ২০২২ সালের মধ্যে একবার ব্যবহারযোগ্য প্লাস্টিক নির্মূল করার লক্ষেও সকলকে এগিয়ে আসতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, মহাত্মা গান্ধী যে স্বপ্ন দেখেছিলেন, সেই স্বপ্ন পূরণের জন্য সরকার বদ্ধপরিকর। এক্ষেত্রে সাধারণ মানুষের আত্মনির্ভরতা বৃদ্ধি, সহজে বসবাস এবং প্রান্তিক মানুষকে উন্নয়নের অংশীদার করতে সরকার একাধিক পদক্ষেপ নিয়েছে বলেও উল্লেখ করেন তিনি। দেশের উন্নয়নে এবং এই স্বপ্ন পূরণের জন্য সাধারণ মানুষকে সংকল্প নেওয়ারও আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, ১৩০ কোটি ভারতবাসী সংকল্প নিলে তবেই এই আমূল পরিবর্তন আসা সম্ভব।

 

 

ডোনেশন
Explore More
আমাদের ‘চলতা হ্যায়’ মানসিকতা ছেড়ে ‘বদল সাকতা হ্যায়’ চিন্তায় উদ্বুদ্ধ হতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

জনপ্রিয় ভাষণ

আমাদের ‘চলতা হ্যায়’ মানসিকতা ছেড়ে ‘বদল সাকতা হ্যায়’ চিন্তায় উদ্বুদ্ধ হতে হবে: প্রধানমন্ত্রী
Landmark day for India: PM Modi on passage of Citizenship Amendment Bill

Media Coverage

Landmark day for India: PM Modi on passage of Citizenship Amendment Bill
...

Nm on the go

Always be the first to hear from the PM. Get the App Now!
...
Here are the Top News Stories for 12th December 2019
December 12, 2019
শেয়ার
 
Comments

Top News Stories is your daily dose of positive news. Take a look and share news about all latest developments about the government, the Prime Minister and find out how it impacts you!