শেয়ার
 
Comments
প্রধানমন্ত্রী রাজস্থানে চারটি নতুন মেডিকেল কলেজের শিলান্যাস করেছেন
মহামারীতে ভারত স্বনির্ভরতা ও শক্তি বৃদ্ধির সংকল্প গ্রহণ করেছে
আমরা দেশের স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে পরিবর্তন আনার জন্য একটি জাতীয় দৃষ্টিভঙ্গী গ্রহণ করেছি এবং জাতীয় স্বাস্থ্য নীতির লক্ষ্যে কাজ করছি
বিগত ৬-৭ বছরে ১৭০টিরও বেশি নতুন মেডিকেল কলেজ প্রতিষ্ঠিত হয়েছে এবং ১০০টিরও বেশি নতুন মেডিকেল কলেজে দ্রুত কাজ শুরু হয়েছে
২০১৪ সালে দেশে মেডেকেলে স্নাতক ও স্নাতকোত্তরে মোট আসন সংখ্যা ছিল ৮২ হাজার। আজ এই সংখ্যা বেড়ে ১ লক্ষ ৪০ হাজার হয়েছে
রাজস্থানের উন্নয়ন দেশের উন্নয়নে গতি আনবে

প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী আজ ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে জয়পুরে সাইপেত : ইন্সটিটিউট অফ পেট্রোকেমিকেলস্‌ টেকনোলজি উদ্বোধন করেছেন। তিনি রাজস্থানের বাঁশওয়াড়া, সিরোহি, হনুমানগড় ও দৌসা জেলায় ৪টি নতুন মেডিকেল কলেজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। প্রধানমন্ত্রী রাজস্থানের এই ৪টি মেডিকেল কলেজ ও সাইপেত প্রতিষ্ঠানের জন্য রাজ্যের মানুষকে অভিনন্দন জানান। তিনি বলেন, ২০১৪ সালের পর রাজস্থানের জন্য ২৩টি মেডিকেল কলেজের অনুমোদন দিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার এবং ৭টি মেডিকেল কলেজ ইতিমধ্যেই চালু হয়ে গেছে।

অনুষ্ঠানের ভাষণে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ১০০ বছরের মধ্যে সবচেয়ে বড় মহামারী বিশ্বের স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে এক শিক্ষা দিয়ে গেছে। বিশ্বের সবকটি দেশই এই সঙ্কট মোকাবিলা করেছে। এই বিপর্যয়ে ভারত স্বনির্ভরতা ও শক্তি বৃদ্ধির সংকল্প গ্রহণ করেছে।

প্রধানমন্ত্রী উল্লেখ করেন যে, কৃষি কাজ রাজ্যের বিষয় হলেও গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে তিনি দেশের স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে ত্রুটিগুলি বুঝতে পেরেছিলেন। তাই, প্রধানমন্ত্রী হিসাবে সেই সমস্যা নিরসনে নিরন্তর প্রচেষ্টা চালিয়েছেন। শ্রী মোদী বলেন, “আমরা দেশের স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে পরিবর্তন আনার জন্য একটি জাতীয় দৃষ্টিভঙ্গী গ্রহণ করেছি এবং জাতীয় স্বাস্থ্য নীতির লক্ষ্যে কাজ করছি। স্বচ্ছ ভারত অভিযান থেকে আয়ুষ্মান ভারত এবং এখন আয়ুষ্মান ভারত ডিজিটাল মিশন – এই ধরনের প্রয়াসের অঙ্গ”। তিনি বলেন, রাজস্থানে প্রায় ৩.৫ লক্ষ মানুষ আয়ুষ্মান ভারত যোজনার আওতায় বিনামূল্যে চিকিৎসার সুবিধা পেয়েছেন এবং এই রাজ্যে প্রায় ২ হাজার ৫০০ স্বাস্থ্য ও সুস্থতা কেন্দ্রে কাজ শুরু হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী জানান, মেডিকেল কলেজ বা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালগুলির কর্মকান্ড দেশের প্রতিটি কোণায় ছড়িয়ে দিতে হবে। তিনি বলেন, “আজ আমরা সন্তোষ প্রকাশ করে বলতে পারি যে, ভারত এখন ২২টি এইমস্ – এর শক্তিশালী কর্মকান্ড গড়ে তোলার দিকে এগিয়ে চলেছে”।

প্রধানমন্ত্রী জানান, বিগত ৬-৭ বছরে ১৭০টিরও বেশি নতুন মেডিকেল কলেজ প্রতিষ্ঠিত হয়েছে এবং ১০০টিরও বেশি নতুন মেডিকেল কলেজে দ্রুত কাজ শুরু হয়েছে। ২০১৪ সালে দেশে মেডেকেলে স্নাতক ও স্নাতকোত্তরে মোট আসন সংখ্যা ছিল ৮২ হাজার। আজ এই সংখ্যা বেড়ে ১ লক্ষ ৪০ হাজার হয়েছে। বিধি ও পরিচালন ব্যবস্থা প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী জানান, জাতীয় মেডিকেল কমিশন গঠন করার সঙ্গে সঙ্গে অতীতের নানা সমস্যার সমাধান করা হয়েছে। 

শ্রী মোদী বলেন, স্বাস্থ্য পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত দক্ষ মানবসম্পদ কার্যকরি স্বাস্থ্য ক্ষেত্রের ওপর সরাসরি প্রভাব ফেলে। করোনাকালে এর গুরুত্ব অনুভব করা গেছে। কেন্দ্রীয় সরকার ‘বিনামূল্যে টিকাকরণ, সকলের জন্য টিকা’ প্রচারাভিযানে সাফল্য এরই প্রতিফলন। তিনি বলেন, আজ ভারতে ৮৮ কোটিরও বেশি কোভিড টিকার ডোজ দেওয়া হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী জানান, আজাদি কা অমৃত মহোৎসবের সময় উচ্চস্তরীয় দক্ষতা শুধু ভারতকেই শক্তিশালী করবে না, বরং আত্মনির্ভর ভারতের সংকল্প অর্জনে প্রধান ভূমিকা পালন করবে। পেট্রোকেমিকেল শিল্পের মতো দ্রুত ক্রমবর্ধমান শিল্পের জন্য দক্ষ মানবসম্পদ এখন প্রয়োজন। তিনি বলেন, নতুন এই ইন্সটিটিউট অফ পেট্রোকেমিকেল টেকনোলজি লক্ষ লক্ষ তরুণকে নতুন সম্ভাবনার সঙ্গে যুক্ত করবে। মুখ্যমন্ত্রী থাকাকালীন তিনি গুজরাটে পন্ডিত দীনদয়াল পেট্রোলিয়াম বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। এখন এই বিশ্ববিদ্যালয় এনার্জি বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিণত হয়েছে। তিনি বলেন, এ ধরনের প্রতিষ্ঠান স্বচ্ছ শক্তি উদ্ভাবনের ক্ষেত্রে তরুণ সম্প্রদায়কে পথ দেখাবে। 

প্রধানমন্ত্রী বারমেরে রাজস্থান তৈল শোধনাগার প্রকল্পের কথা উল্লেখ করে জানান যে, সেখানে ৭০ হাজার কোটি টাকারও বেশি বিনিয়োগ হয়েছে। এর ফলে, এই প্রকল্পের কাজ দ্রুতগতিতে এগোচ্ছে। রাজ্যে নগর গ্যাস বন্টন ব্যবস্থাপনা প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী জানান যে, ২০১৪ সাল পর্যন্ত সেই রাজ্যে মাত্র একটি মাত্র শহরে নগর গ্যাস বন্টন ব্যবস্থাপনা ছিল। এখন ১৭টি জেলায় এই ব্যবস্থাপনা অনুমোদিত হয়েছে। আগামী দিনে রাজ্যের প্রতিটি জেলায় পাইপ বাহিত গ্যাস নেটওয়ার্ক গড়ে উঠবে। শৌচাগার, বিদ্যুৎ, গ্যাস সংযোগের মাধ্যমে জীবনযাত্রার মনোন্নয়নের কথাও উল্লেখ করেন তিনি। প্রধানমন্ত্রী বলেন, এখন রাজ্যে জল জীবন মিশনের মাধ্যমে ২১ লক্ষেরও বেশি পরিবারে পাইপবাহিত জল পৌঁছে দেওয়া গেছে। তিনি জানান যে, “রাজস্থানের উন্নয়ন দেশের উন্নয়নে গতি আনবে”। প্রধানমন্ত্রী বলেন, রাজস্থানে দরিদ্র পরিবারগুলির জন্য ১৩ লক্ষ পাকা বাড়ি নির্মাণ করা হবে। 

'মন কি বাত' অনুষ্ঠানের জন্য আপনার আইডিয়া ও পরামর্শ শেয়ার করুন এখনই!
প্রধানমন্ত্রী ২০২২ সালের ‘পরীক্ষা পে চর্চা’ অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণের জন্য আহ্বান জানিয়েছেন
Explore More
উত্তরপ্রদেশের বারাণসীতে কাশী বিশ্বনাথ ধাম উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণ

জনপ্রিয় ভাষণ

উত্তরপ্রদেশের বারাণসীতে কাশী বিশ্বনাথ ধাম উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণ
PM Modi is the world's most popular leader, the result of his vision and dedication to resolve has made him known globally

Media Coverage

PM Modi is the world's most popular leader, the result of his vision and dedication to resolve has made him known globally
...

Nm on the go

Always be the first to hear from the PM. Get the App Now!
...
সোশ্যাল মিডিয়া কর্নার 28 জানুয়ারি 2022
January 28, 2022
শেয়ার
 
Comments

Indians feel encouraged and motivated as PM Modi addresses NCC and millions of citizens.

The Indian economy is growing stronger and greener under the governance of PM Modi.