শেয়ার
 
Comments
Loknayak JP and Nanaji Deshmukh devoted their lives towards the betterment of our nation: PM
Loknayak JP was deeply popular among youngsters. Inspired by Gandhiji’s clarion call, he played key role during ‘Quit India’ movement: PM
Loknayak JP fought corruption in the nation. His leadership rattled those in power: Prime Minister
Initiatives have to be completed on time and the fruits of development must reach the intended beneficiaries, says PM Modi
Strength of a democracy cannot be restricted to how many people vote but the real essence of a democracy is Jan Bhagidari: PM Modi

আজ রাজধানীর পুসায় নানাজিদেশমুখের জন্মশতবর্ষ উদযাপনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেন প্রধানমন্ত্রী শ্রীনরেন্দ্র মোদী।

“ প্রযুক্তি ও পল্লী জীবন ” বিষয়টিকে অবলম্বন করেআয়োজিত এক প্রদর্শনীও পরিদর্শন করেন তিনি। দক্ষ কাজকর্ম ও ব্যবস্হাপনা এবং বেশকিছু অ্যাপ্লিকেশনের প্রযুক্তিগত প্রয়োগ তুলে ধরা হয়েছে এই প্রদর্শনীতে। সেইসঙ্গে পল্লী উন্নয়ন মন্ত্রকের বিভিন্নউদ্যোগ ও কর্মসূচি সম্পর্কিত তথ্যও বিশেষ গুরুত্বের সঙ্গে স্হান পেয়েছে সেখানে।সরকারি কর্মসূচিগুলির সুফল গ্রহীতা এবং উদ্ভাবন প্রচেষ্টার সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিদেরসঙ্গে প্রদর্শনীস্হলে আলোচনা ও মত-বিনিময় করেন প্রধানমন্ত্রী।

 

 

নানাজি দেশমুখ এবং লোকনায়কজয়প্রকাশ নারায়ণের উদ্দেশে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করেন শ্রী নরেন্দ্র মোদী। প্রকাশকরেন নানাজি দেশমুখের ওপর একটি স্মারক ডাকটিকিট-ও।

এরপর প্রধানমন্ত্রী সুচনাকরেন ‘ দিশা ’ পোর্টালটির। সাংসদ ও বিধায়করা তাঁদের নির্বাচনীএলাকায় যে সমস্ত প্রকল্প ও কর্মসূচি রূপায়ণের সঙ্গে যুক্ত তার বর্তমান পরিস্হিতি ওঅগ্রগতিকে তুলে ধরা হয়েছে এই একটিমাত্র পোর্টালের সাহায্যে। এ পর্যন্ত ২০টিমন্ত্রকের ৪১টি প্রকল্প ও কর্মসূচি সম্পর্কিত বিশদ তথ্য সন্নিবেশিত হয়েছে সেখানে।

 

শ্রীমোদী সূচনা করেন ‘ গ্রাম সংবাদ ’ নামে একটি মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন-ও। ভারতের গ্রামীণনাগরিকদের ক্ষমতায়ন ও পরিষেবা দানের লক্ষ্যে সূচনা হল এই বিশেষ অ্যাপ্লিকেশনটির।গ্রাম পঞ্চায়েত পর্যায়ে বিভিন্ন পল্লী উন্নয়ন কর্মসূচি সম্পর্কে বিশদ তথ্যনাগরিকদের কাছে পৌঁছে দেওয়া হবে এর সাহায্যে। বর্তমানে মন্ত্রকের ৭টি কর্মসূচিকেতুলে ধরা হয়েছে এই অ্যাপ্লিকেশনটির মাধ্যমে।

আজকেরঅনুষ্ঠানস্হল আইএআরআই-তে ১১টি গ্রামীণ স্বনির্ভর কর্মসংস্হান প্রশিক্ষণপ্রতিষ্ঠানের দপ্তরও প্রযুক্তিগতভাবে উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। আইএআরআই-তে ‘ প্ল্যান্ট ফেনোমিক্স ’ -এরসুযোগ-সুবিধার ব্যবস্হাও আজ আনুষ্ঠানিকভাবে চালু করেন তিনি।

দশহাজারেরও বেশি ব্যক্তির এক সমাবেশে এদিন ভাষণ দেন প্রধানমন্ত্রী। স্বনির্ভরগোষ্ঠী, পঞ্চায়েত, জল সংরক্ষণ সম্পর্কিত উদ্ভাবন প্রচেষ্টার সঙ্গে যুক্ত পেশাদারএবং প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনার সুফল গ্রহীতারা এই সমাবেশে যোগ দেন।

শ্রীমোদী তাঁর ভাষণে বলেন, ভারতের দুই মহান নেতা নানাজি দেশমুখ এবং লোকনায়ক জয়প্রকাশনারায়ণের জন্মবার্ষিকী উদযাপিত হচ্ছে এই দিনটিতে। তাঁরা উভয়েই জাতির কল্যাণেনিজেদের জীবন উ ৎ সর্গ করেছিলেন।

প্রধানমন্ত্রীবলেন, তরুণ ও যুবকদের মধ্যে বিশেষভাবে জনপ্রিয় ছিলেন লোকনায়ক জয়প্রকাশ নারায়ণ।মহাত্মা গান্ধীর উদাত্ত আহ্বানে অনুপ্রাণিত হয়ে লোকনায়াক জয়প্রকাশ নারায়ণ এবং ডঃলোহিয়ার মতো দেশ নেতারা সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেছিলেন ‘ ভারতছাড়ো ’ আন্দোলনে। লোকনায়ক জয়প্রকাশ নারায়ণ কখনই ক্ষমতাররাজনীতিতে আগ্রহী ছিলেন না, বরং দুর্নীতির বিরুদ্ধে তিনি আজীবন সংগ্রাম চালিয়েগেছেন। অন্যদিকে নানাজি দেশমুখ-ও পল্লী উন্নয়নের কাজে নিজেকে উ ৎসর্গ করা শ্রেয় বলে মনেকরতেন। তাঁর আগ্রহ ছিল গ্রাম ভারতকে দারিদ্র্যমুক্ত ও স্বনির্ভর করে তোলার দিকে।

শ্রী মোদী বলেন, উন্নয়নেরলক্ষ্যে ভালো ভালো চিন্তাভাবনাই শুধুমাত্র যথেষ্ট নয়। উদ্যোগ ও কর্মসূচিগুলিকেসঠিক সময়ে সম্পূর্ণ করাও অবশ্য প্রয়োজন যাতে উন্নয়নের সুফলকে পৌঁছে দেওয়া যায়দেশের নাগরিকদের কাছে। প্রধানমন্ত্রীর মতে উন্নয়ন প্রচেষ্টার উদ্দেশ্য হওয়া উচিতসুনির্দিষ্ট লক্ষ্যপূরণ, শুধুমাত্র কর্মসূচি রূপায়ণ-ই নয়।

 

দেশের শহরগুলিতে যে ধরণেরসুযোগ-সুবিধা রয়েছে তার প্রসার পল্লী অঞ্চলেও অবশ্যই ঘটানো প্রয়োজন বলে মনে করেনপ্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, গণতন্ত্রের মূল ও প্রকৃত অর্থই হল জন-অংশীদারিত্ব এবং শহরও গ্রামাঞ্চলের উন্নয়ন প্রচেষ্টার সঙ্গে সাধারণ মানুষকে যুক্ত করা। এই লক্ষ্যেসরকারের সঙ্গে নিয়মিত সংযোগ ও যোগাযোগ রক্ষার ওপর বিশেষ গুরুত্ব দেন তিনি।

উপযুক্ত স্বাস্হ্য ব্যবস্হারঅপ্রতুলতা যে গ্রামজীবনে উন্নয়নের অন্তরায় এ কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে প্রধানমন্ত্রীবলেন, ঠিক এই কারণেই দেশের পল্লী অঞ্চলে শৌচাগার নির্মাণের কাজে বিশেষভাবে আগ্রহীতাঁর সরকার।

Click here to read the full text speech

Explore More
৭৬তম স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে লালকেল্লার প্রাকার থেকে প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদীর জাতির উদ্দেশে ভাষণের বঙ্গানুবাদ

জনপ্রিয় ভাষণ

৭৬তম স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে লালকেল্লার প্রাকার থেকে প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদীর জাতির উদ্দেশে ভাষণের বঙ্গানুবাদ
UNGA President Csaba Korosi lauds India's calls for peace amid Ukraine war

Media Coverage

UNGA President Csaba Korosi lauds India's calls for peace amid Ukraine war
...

Nm on the go

Always be the first to hear from the PM. Get the App Now!
...
Text of PM’s remarks ahead of the Budget Session of Parliament
January 31, 2023
শেয়ার
 
Comments

नमस्‍कार साथियों।

2023 का वर्ष आज बजट सत्र का प्रारंभ हो रहा है और प्रारंभ में ही अर्थ जगत के जिनकी आवाज को मान्‍यता होती है वैसी आवाज चारों तरफ से सकारात्‍मक संदेश लेकर के आ रही है, आशा की किरण लेकर के आ रही है, उमंग का आगाज लेकर के आ रही है। आज एक महत्‍वपूर्ण अवसर है। भारत के वर्तमान राष्‍ट्रपति जी की आज पहली ही संयुक्‍त सदन को वो संबोधित करने जा रही है। राष्‍ट्रपति जी का भाषण भारत के संविधान का गौरव है, भारत की संसदीय प्रणाली का गौरव है और विशेष रूप से आज नारी सम्‍मान का भी अवसर है और दूर-सुदूर जंगलों में जीवन बसर करने वाले हमारे देश के महान आदिवासी परंपरा के सम्‍मान का भी अवसर है। न सिर्फ सांसदों को लेकिन आज पूरे देश के लिए गौरव का पल है की भारत के वर्तमान राष्‍ट्रपति जी का आज पहला उदृबोधन हो रहा है। और हमारे संसदीय कार्य में छह सात दशक से जो परंपराऐं विकसित हुई है उन परंपराओं में देखा गया है कि अगर कोई भी नया सांसद जो पहली बार सदन में बोलने के लिए में खड़ा होता है तो किसी भी दल का क्‍यों न हो जो वो पहली बार बोलता है तो पूरा सदन उनको सम्‍मानित करता है, उनका आत्‍मविश्‍वास बढ़े उस प्रकार से एक सहानूकूल वातावरण तैयार करता है। एक उज्‍जवल और उत्‍तम परंपरा है। आज राष्‍ट्रपति जी का उदृबोधन भी पहला उदृबोधन है सभी सांसदों की तरफ से उमंग, उत्‍साह और ऊर्जा से भरा हुआ आज का ये पल हो ये हम सबका दायित्‍व है। मुझे विश्‍वास है हम सभी सांसद इस कसौटी पर खरे उतरेंगे। हमारे देश की वित्त मंत्री भी महिला है वे कल और एक बजट लेकर के देश के सामने आ रही है। आज की वैश्‍विक परिस्‍थिति में भारत के बजट की तरफ न सिर्फ भारत का लेकिन पूरे विश्‍व का ध्‍यान है। डामाडोल विश्‍व की आर्थिक परिस्‍थिति में भारत का बजट भारत के सामान्‍य मानवी की आशा-आकाक्षों को तो पूरा करने का प्रयास करेगा ही लेकिन विश्‍व जो आशा की किरण देख रहा है उसे वो और अधिक प्रकाशमान नजर आए। मुझे पूरा भरोसा है निर्मला जी इन अपेक्षाओं को पूर्ण करने के लिए भरपूर प्रयास करेगी। भारतीय जनता पार्टी के नेतृत्‍व में एनडीए सरकार उसका एक ही मकसद रहा है, एक ही मोटो रहा है, एक ही लक्ष्‍य रहा है और हमारी कार्य संस्‍कृति के केंद्र बिंदु में भी एक ही विचार रहा है ‘India First Citizen First’ सबसे पहले देश, सबसे पहले देशवासी। उसी भावना को आगे बढाते हुए ये बजट सत्र में भी तकरार भी रहेगी लेकिन तकरीर भी तो होनी चाहिए और मुझे विश्‍वास है कि हमारे विपक्ष के सभी साथी बड़ी तैयारी के साथ बहुत बारीकी से अध्‍ययन करके सदन में अपनी बात रखेंगे। सदन देश के नीति-निर्धारण में बहुत ही अच्‍छी तरह से चर्चा करके अमृत निकालेगा जो देश का काम आएगा। मैं फिर एक बार आप सबका स्‍वागत करता हूं।

बहुत-बहुत शुभकामनाएं देता हूं। धन्‍यवाद।