শেয়ার
 
Comments
প্রধানমন্ত্রী উত্তরপ্রদেশের ৭৫টি জেলায় ৭৫ হাজার সুবিধাভোগীর হাতে প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনা- আর্বান (পিএমএওয়াই-ইউ) প্রকল্পের নির্মিত বাড়িগুলির চাবি তুলে দিয়েছেন
স্মার্ট সিটি মিশন ও অম্রুত প্রকল্পের আওতায় উত্তরপ্রদেশে ৭৫টি নগরোন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন/শিলান্যাস করেছেন
লক্ষ্ণৌ, কানপুর, বারাণসী, প্রয়াগরাজ, গোরক্ষপুর, ঝাঁসি ও গাজিয়াবাদের জন্য ফেম-২ এর আওতায় ৭৫টি বাসের যাত্রার সূচনা করেছেন
লক্ষ্ণৌয় বাবাসাহের ভীমরাও আম্বেদকর বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিবিএইউ) শ্রী অটল বিহারী বাজপেয়ী চেয়ারের কথা ঘোষণা করেছেন
আগ্রা, কানপুর ও ললিতপুরের তিন সুবিধাভোগীর সঙ্গে ঘরোয়া, খোলামেলা মতবিনিময় করেছেন
“পিএমএওয়াই-ইউ-এর আওতায় শহরাঞ্চলে ১ কোটি ১৩ লক্ষের বেশি বাড়ি তৈরি করা হচ্ছে এবং এর মধ্যে ৫০ হাজারের বেশি বাড়ি ইতিমধ্যেই তৈরি হয়ে গেছে ও সেগুলি দরিদ্র মানুষদের হস্তান্তরিত করা হয়েছে”
“পিএমএওয়াই-এর আওতায় দেশে প্রায় ৩ কোটি বাড়ি নির্মিত হয়েছে, আপনারা এই বাড়িগুলির মূল্য উপলব্ধি করতে পারছেন। এই মানুষেরা লাখপতি হয়ে উঠেছেন”
“আজ আমরা বলবো ‘পহেলে আপ’- প্রযুক্তি প্রথম” “এলইডি রাস্তার আলো লাগানোয় পুরসভ

প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী লক্ষ্ণৌয় ‘আজাদি@৭৫- নতুন ভারতের শহর : শহরের জীবনের চালচিত্রের পরিবর্তন’ সম্মেলন ও প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেছেন। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী শ্রী রাজনাথ সিং, শ্রী হরদীপ সিং পুরী, শ্রী মহেন্দ্রনাথ পান্ডে, শ্রী কৌশল কিশোর, উত্তরপ্রদেশের রাজ্যপাল শ্রীমতি আনন্দীবেন প্যাটেল ও রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।  

 

 

প্রধানমন্ত্রী উত্তরপ্রদেশের ৭৫টি জেলার ৭৫ হাজার সুবিধাভোগীর হাতে প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনা-আর্বান (পিএমএওয়াই-ইউ) প্রকল্পে নির্মিত বাড়ির চাবি তুলে দেন। তিনি এই প্রকল্পের সুবিধাভোগীদের সঙ্গে ভার্চুয়ালি মতবিনিময় করেন। শ্রী মোদী স্মার্ট সিটিজ মিশন ও অম্রুত প্রকল্পের ৭৫টি নগরোন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন ও শিলান্যাস করেছেন। তিনি লক্ষ্ণৌ, কানপুর, বারাণসী, প্রয়াগরাজ, গোরক্ষপুর, ঝাঁসি ও গাজিয়াবাদের জন্য ফেম-২ এর আওতায় ৭৫টি বাসের যাত্রার সূচনা করেছেন। এছাড়াও তিনি কেন্দ্রীয় আবাসন ও নগরোন্নয়ন মন্ত্রকের বেশ ৭৫টি ফ্ল্যাগশিপ প্রকল্পের তথ্য সম্বলিত কফি টেবিল বুক প্রকাশ করেছেন। প্রধানমন্ত্রী লক্ষ্ণৌয় বাবাসাহেব ভীমরাও আম্বেদকর বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিবিএইউ) শ্রী অটল বিহারী বাজপেয়ীর নামাঙ্কিত চেয়ারের ঘোষণা করেছেন।  

আগ্রার শ্রীমতি বিমলেশের সঙ্গে মতবিনিময়ের সময় প্রধানমন্ত্রী জানতে পারেন পিএম আবাস যোজনার সুফল পাওয়া ছাড়াও তিনি গ্যাস সিলিন্ডার, শৌচালয়, বিদ্যুৎ ও জলের সংযোগ, রেশন কার্ড ইত্যাদি বিভিন্ন প্রকল্পের সুযোগ-সুবিধা পেয়েছেন। তিনি তাঁকে বিভিন্ন সরকারি প্রকল্পের সুযোগ-সুবিধা গ্রহণ করে তাঁর মেয়ে সহ সকল শিশুকে শিক্ষিত করার পরামর্শ দিয়েছেন।

কানপুরের রাম জানকীজির সঙ্গে মতবিনিময়ের সময় প্রধানমন্ত্রী জানতে চান দুধ বিক্রেতা হিসেবে তিনি স্বামীত্ব প্রকল্পের সুবিধা পেয়েছেন কি না। তিনি জানিয়েছেন তাঁর ব্যবসার জন্য ১০ হাজার টাকা ঋণ পেয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী তাঁকে তাঁর ব্যবসার ডিজিটাল লেনদেন বাড়ানোর পরামর্শ দিয়েছেন।

শ্রী মোদী ললিতপুরে পিএম আবাস যোজনার সুবিধাভোগী শ্রীমতি ববিতার সঙ্গে কথা বলার সময় তাঁর জীবিকা এবং এই প্রকল্পটির বিষয়ে তাঁর কি অভিজ্ঞতা সে সম্পর্কে জানতে চান। তিনি বলেন জন ধন অ্যাকাউন্ট সুবিধাভোগীর কাছে এখন সরাসরি টাকা পাঠান সম্ভব। প্রযুক্তি দরিদ্রদের সব থেকে বেশি সাহায্য করে। প্রধানমন্ত্রী তাঁকে স্বামীত্ব প্রকল্পের সুবিধা নিতে পরামর্শ দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী অত্যন্ত ঘরোয়া ও খোলামেলা পরিবেশে মতবিনিময় করেন।  

উপস্থিত সকলের উদ্দেশে ভাষণ দেওয়ার সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, এই প্রকল্পে যেখানে ছেলেদের নাম আছে সেখানে প্রয়োজন হলে নাম পরিবর্তন করা যেতে পারে। পিএম আবাস যোজনায় ৮০ শতাংশের বেশি বাড়ি মহিলাদের নামে অথবা তাঁরা যৌথ সম্পত্তির অংশীদার।  

অটল বিহারী বাজপেয়ীর মতো একজন দূরদর্শী সম্পন্ন মানুষকে লক্ষ্ণৌ উপহার দেওয়ায় প্রধানমন্ত্রী এই শহরকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন। অটল বিহারী বাজপেয়ী ভারত মাতার জন্য নিবেদিত প্রাণ ছিলেন। তিনি বলেন, ‘আজ বাবাসাহেব ভীমরাও আম্বেদকর বিশ্ববিদ্যালয়ে অটল বিহারী বাজপেয়ীর স্মৃতিতে একটি চেয়ার তৈরির সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।’

প্রধানমন্ত্রী আগের সংখ্যার সঙ্গে তুলনা করে জানান, পিএম আবাস যোজনায় এখন বাড়ি তৈরির সংখ্যা বেড়েছে। শহরাঞ্চলে ১ কোটি ১৩ লক্ষের বেশি বাড়ি তৈরি করা হচ্ছে। এর মধ্যে ৫০ লক্ষের বেশি বাড়ি তৈরির কাজ সম্পূর্ণ হয়েছে। দরিদ্র মানুষদের সেই বাড়িগুলি হস্তান্তরিত করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী বলেন, শহরাঞ্চলে ৩ কোটি পরিবার যারা আগে বস্তি অঞ্চলে বাস করতেন ও যাঁদের পাকা বাড়ির ছাদ ছিলনা সেখানকার মানুষরা আজ লাখপতি হওয়ার সুযোগ পাচ্ছেন। ‘প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনায় দেশজুড়ে ৩ কোটি বাড়ি তৈরি করা হচ্ছে। আশা করি আপনারা এগুলির মূল্য সম্পর্কে ধারণা করতে পারছেন। এইসব মানুষরা লাখপতি হয়ে উঠেছেন।’ উত্তরপ্রদেশে দ্রুত গতিতে বর্তমানে প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হচ্ছে। এর আগের সরকারগুলি এই প্রকল্পে ১৮ হাজার বাড়ি তৈরির প্রস্তাবে সম্মতি দিলেও ১৮টি বাড়িও তাদের সময় হয়নি। শ্রী যোগী আদিত্যনাথের নেতৃত্বে বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর ৯ লক্ষ বাড়ি শহরাঞ্চলের দরিদ্র মানুষের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। ৪৪ লক্ষ বাড়ি নির্মাণের বিভিন্ন পর্যায়ে আছে। প্রত্যেকটি বাড়ি অত্যাধুনিক সুযোগ-সুবিধা যুক্ত।  

প্রধানমন্ত্রী শহরাঞ্চলের মধ্যবিত্ত মানুষদের বিভিন্ন সমস্যার সমাধানে সরকারের নানান উদ্যোগের কথা বলেছেন। একাজে রিয়েল এস্টেট রেগুলেটরি অথরিটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নিয়েছে। ভুল বোঝাবুঝির অবসান ঘটিয়ে এই আইন সংশ্লিষ্ট সকলের জন্য সুবিধাজনক হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, এলইডি রাস্তার আলো বসানোয় শহরাঞ্চলে প্রতি বছর ১ হাজার কোটি টাকা সাশ্রয় হচ্ছে। এই অর্থ অন্যান্য উন্নয়নমূলক কাজে ব্যয় করা হচ্ছে। তিনি বলেন, এলইডি আলো শহরাঞ্চলে মানুষের বিদ্যুতের বিলের পরিমাণ কমিয়ে দিয়েছে।

শ্রী মোদী বলেন, বিগত ৬-৭ বছরে প্রযুক্তির কারণে শহরাঞ্চলে বিরাট পরিবর্তন এসেছে। দেশের ৭০টি শহরে আজ ইন্টিগ্রেটেড কম্যান্ড অ্যান্ড কন্ট্রোল সেন্টারগুলি প্রযুক্তির সাহায্যে পরিচালিত হচ্ছে। লক্ষ্ণৌর বিখ্যাত পরম্পরার অনুকরণে  প্রধানমন্ত্রী বলেন, “আমরা এখন বলবো ‘পহেলে আপ’- প্রযুক্তি প্রথম।”

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন পিএম স্বনিধি যোজনায় রাস্তার হকাররা ব্যাঙ্কের অ্যাকাউন্ট পেয়েছেন। এই প্রকল্পে ২৫ লক্ষ সুবিধাভোগীর কাছে ২ হাজার ৫০০ কোটি টাকার বেশি দেওয়া হয়েছে। উত্তরপ্রদেশে স্বনিধি প্রকল্পে ৭ লক্ষের বেশি মানুষ উপকৃত হয়েছেন। ডিজিটাল লেনদেনের সাহায্য নেওয়ায় তিনি হকারদের প্রশংসা করেছেন। তিনি ডিজিটাল লেনদেনে উৎসাহিত করার জন্য হকারদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন।  

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আজ দেশের বড় বড় শহরগুলির মেট্রো পরিষেবা ক্রমশ বাড়ছে। ২০১৪ সালে ২৫০ কিলোমিটারেরও কম পথ মেট্রো পাড়ি দিত। আজ মেট্রো ৭৫০ কিলোমিটারের বেশি পথে চলাচল করে। তিনি বলেন দেশে এই মুহূর্তে ১ হাজার কিলোমিটারের বেশি মেট্রোর লাইন বসানোর কাজ চলছে।

 

 

 



 

 

 

 

 

 

 

 

সম্পূর্ণ ভাষণ পড়তে এখানে ক্লিক করুন

'মন কি বাত' অনুষ্ঠানের জন্য আপনার আইডিয়া ও পরামর্শ শেয়ার করুন এখনই!
21 Exclusive Photos of PM Modi from 2021
Explore More
উত্তরপ্রদেশের বারাণসীতে কাশী বিশ্বনাথ ধাম উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণ

জনপ্রিয় ভাষণ

উত্তরপ্রদেশের বারাণসীতে কাশী বিশ্বনাথ ধাম উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণ
Budget Expectations | 75% businesses positive on economic growth, expansion, finds Deloitte survey

Media Coverage

Budget Expectations | 75% businesses positive on economic growth, expansion, finds Deloitte survey
...

Nm on the go

Always be the first to hear from the PM. Get the App Now!
...
Social Media Corner 17th January 2022
January 17, 2022
শেয়ার
 
Comments

FPIs invest ₹3,117 crore in Indian markets in January as a result of the continuous economic comeback India is showing.

Citizens laud the policies and reforms by the Indian government as the country grows economically stronger.